ত্বক পরিষ্কার করার কিছু ভুল

বাইরে থেকে আসেই আমরা মুখ ধুয়ে থাকি। বাইরের ধুলোবালিতে আমাদের মুখের ত্বক খারাপ হয়ে যেতে পারে। কিন্তু এই ত্বক পরিষ্কার করার সময় আমরা কিছু ভুল করে থাকি যা আমাদের ত্বককে ক্ষতি করে।

দীর্ঘক্ষণ স্ক্রাব করা

স্ক্রাবিং ত্বকের জন্য অনেক বেশি জরুরি। ত্বকের মরা চামড়া দূর হয় এবং গভীরে জমে থাকা ময়লা দূর হয়। কিন্তু অনেকের ধারণা বেশি সময় ধরে স্ক্রাব করলে ত্বকের ময়লা একেবারে দূর হবে। এটি অনেক বড় একটি ভুল কাজ। স্ক্রাবার দিয়ে মুখের ত্বক ১/২ মিনিটের বেশি স্ক্রাব করা একেবারেই উচিৎ নয়। কারণ এর বেশিসময় ধরে স্ক্রাব করলে ত্বকের স্থায়ী ক্ষতি হয়।
ঘনঘন ত্বক স্ক্রাব করা : সাধারণত সপ্তাহে ২/৩ বারের বেশি ত্বক স্ক্রাব করা উচিৎ নয়। কারণ বেশি ত্বক স্ক্রাব করলে ত্বকের টিস্যু ছিঁড়ে যাওয়া এবং ব্রনের উপদ্রব বেড়ে যাওয়ার মতো সমস্যায় ভুগতে হয়। যদি ত্বক বেশি স্ক্রাব করতেই হয় তবে ডেইলি স্ক্রাবার বেছে নেবেন।

পানির ভুল তাপমাত্রা নির্বাচন

অনেক সময় নানা ফেসমাস্ক বা উপটান ব্যবহারের পর তা ঠাণ্ডা বা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলার নির্দেশ দেয়া থাকে। তখন আমরা সঠিক তাপমাত্রার পানি ব্যবহার করতে অনেক বড় ভুল করে থাকি। কোনো ফেসমাস্ক ব্যবহারের পর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলতে হলে খুব বেশি ঠাণ্ডা পানি দিয়ে মুখ ধোয়া উচিৎ নয়। আবার যখন গরম পানি দিয়ে মুখ ধোয়ার কথা বলা হয়ে থাকে তখন ভুলেও গরম পানি ব্যবহার করতে যাবেন না। খুব হালকা গরম পানি ব্যবহার করবেন। তা না হলে ত্বকের কোষ পুড়ে যাওয়ার মতো স্থায়ী ক্ষতি হয়।

শক্ত কাপড় দিয়ে মুখ মোছা

অনেকেই মুখের ত্বক পরিষ্কারের পর মুখ মোছার জন্য যা ব্যবহার করেন তা ভুল নির্বাচন করে থাকেন। শক্ত তোয়ালে কিংবা কাপড় দিয়ে মুখ মোছা একেবারেই উচিৎ নয়। মুখ মোছার তোয়ালে বা কাপড় হিসেবে অনেক নরম কিছু বেছে নিন। এছাড়া বাইরে থাকলে অনেকে ফেসিয়াল ওয়াইপ এবং টিস্যু ব্যবহার করেন। এতে করে ত্বকের নরম কোষের অনেক ক্ষতি হয় এবং ত্বক রুক্ষ্ম হয়ে যায়। দিনে দুইবারের বেশি ফেসিয়াল ওয়াইপ বা টিস্যু দিয়ে মুখ মোছা ঠিক নয়।