উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরুল সম্পাদক আরিফ

খাইরুল মোমেন স্বপন, বিশেষ প্রতিনিধি ।।

শনিবার (৫ অক্টোবর) ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার উত্তেজনাকর পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নিকলী উপজেলা শাখার সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। নিকলীস্থ জেলা পরিষদ অডিটরিয়ামে কাউন্সিলরদের সরাসরি ভোটে ইমরুল হাসান সভাপতি ও মো. আরিফ মিয়া সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন।

জানা যায়, নিকলী ছাত্রলীগ সভাপতি ও নিকলী সদর ইউপি চেয়ারম্যান কারার শাহরিয়ার আহম্মেদ তুলিপের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি নিকলী-বাজিতপুর সংসদীয় আসনের সদস্য আলহাজ্ব মো. আফজাল হোসেন, উদ্বোধক কিশোরগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি শফিকুল গণি ঢালী লিমনসহ জেলা ও উপজেলা নেতৃবৃন্দ নিকলী জিসি পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠের মঞ্চে উপস্থিত হন। বেলা ১২টায় সভাপতি প্রার্থী ইমরুল হাসান তার সমর্থিতদের নিয়ে মঞ্চের সামনে যাওয়ার সময় সম্পাদক প্রার্থী মো. আরিফ মিয়ার সমর্থিতদের সাথে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় উভয় পক্ষের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় ইমরুল হাসানের কমপক্ষে ৩ সমর্থক আহত হন। নিকলী থানা পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

সভাপতি ইমরুল হাসান ও সাধারণ সম্পাদক মো. আরিফ মিয়া

আলোচনা পর্ব শেষে সন্ধ্যায় নিকলীস্থ জেলা পরিষদ অডিটরিয়ামে কাউন্সিলের মাধ্যমে কমিটি গঠনের সিদ্ধান্ত হয়। আবারও সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী জেরিন ও মো. আরিফ মিয়ার সমর্থকদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। জেরিন প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলে উত্তেজনাকর পরিবেশে ৩শ’ কাউন্সিলরের ভোট গ্রহণ শুরু হয়।

৭ ভোট প্রাপ্ত রেজুয়ানুল ইসলাম শাওনকে (হরিণ) পরাজিত করে ২০৪ ভোট পেয়ে ইমরুল হাসান (মাছ) সভাপতি এবং সাধারণ সম্পাদক পদে ১৫ ভোটপ্রাপ্ত নূরন্নবী হোসেন নিলয়কে (ছাতা) পরাজিত করে ১৯৫ ভোট পেয়ে মো. আরিফ নির্বাচিত হন।