লা লিগায় ২৫০ গোলের মালিক মেসি

শনিবার স্প্যানিশ লীগে এইবারের বিপক্ষে ৩-০ গোলের জয় পেয়েছে বার্সেলোনা। জাভি, নেইমারের পাশাপাশি দলের গোল মেশিন লিয়নেল মেসিও করেছেন একটি গোল। আর এই গোলের মাধ্যমে লা লিগায় ২৫০ গোলের গর্বিত মালিক এখন আর্জেন্টাইন এই তারকা।
আগামী সপ্তাহে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে মৌসুমের প্রথম এল ক্যাসিকাতে এখন তার সামনে টেলমো জারার ২৫১ গোলের রেকর্ডকে ছাড়িয়ে যাওয়ার হাতছানি। ১৯৪০-৫০ এর দশকে অ্যাথলেটিকো বিলবাওয়ের হয়ে জারা লা লিগায় এই রেকর্ড গড়েছিলেন।
দিনের অপর ম্যাচে লেভান্তেকে ৫-০ গোল হারিয়ে টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে রিয়াল মাদ্রিদ। এই ম্যাচেও ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডো তার ফর্মের ধারাবাহিকতা বজায় রেখে দুই গোল করেছেন। টেবিলের শীর্ষে থাকা বার্সেলোনার তুলনায় রিয়ালের পয়েন্টের ব্যবধান এখন চার।
প্রথমবারের মত স্প্যানিশ লীগে শীর্ষ পর্যায়ে খেলতে এসেই এইবার নিজেদের প্রমান করেছে। বার্সেলোনার বিপক্ষে গতকালও ন্যু ক্যাম্পে তার ব্যতিক্রম ছিল না। দারুণ সংগঠিত এইবারের বিপক্ষে প্রথম গোল পেতে বার্সেলোনাকে পুরো একঘন্টা অপেক্ষা করতে হয়েছে। ৬০ মিনিটে ডেডলক ভেঙ্গে স্বাগতিকদের উদ্ধার করেন জাভি। ৭২ মিনিটে নেইমার ব্যবধান দ্বিগুন করার দুই মিনিট পরে মেসিকে তৃতীয় গোল করতে সহায়তা করেন। চলতি সপ্তাহে বার্সেলোনার হয়ে অভিষেকের দশম বছর পালন করছেন মেসি।
ম্যাচ শেষে জাভি বলেছেন, প্রথম গোল পেতে আমাদের বেশ বেগ পেতে হয়েছে। কিন্তু তারপর ম্যাচটি সহজ হয়ে যায়। প্রথম গোলের পরে তারা আমাদের থেকে বেশী পরিশ্রান্ত হয়ে পড়েছিল। একইসাথে আমাদের রক্ষণভাগ আরো বেশী শক্তিশালী হয়ে উঠে। এটাই ম্যাচেই পার্থক্য গড়ে দেয়।
নতুন কোচ লুইস এনরিকে বার্সেলোনার রক্ষণভাগ শক্তিশালী করার দিকে বেশি জোড় দিয়েছেন। আর সেই কারণেই কিনা এখন পর্যন্ত লীগের আটটি ম্যাচে বার্সেলোনা কোন গোল হজম করেনি।
দিনের প্রথম ম্যাচে মাত্র ১৩ মিনিটেই সফরকারীদের এগিয়ে দিয়েছিলেন রোনাল্ডো। হুয়ানফ্র্যান ডি বক্সের ভিতর জেভিয়ার হার্নান্দেজকে ফাউল করে বসলে রেফারী পেনাল্টির নির্দেশ দেন। স্পট কিক থেকে রিয়ালকে এগিয়ে দেন রোনাল্ডো। ৩৮ মিনিটে হেডের সাহায্যে মেক্সিকান স্ট্রাইকার হার্নান্দেজ ব্যবধান দ্বিগুন করেন। বিরতির পরে ৬১ মিনিটে বাম উইং থেকে দারুণ এক গোলের মাধ্যমে আট ম্যাচে নিজের ১৫তম গোল পূর্ণ করেন পর্তুগীজ উইঙ্গার। ৬৫ মিনিটে হামেস রদ্রিগেজ ভলির সাহায্যে চতুর্থ ও ৮২ মিনিটে ১৮ মিটার থেকে দলের পক্ষে পঞ্চম গোল করেন ইসকো।
ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে রিয়াল কোচ কার্লো আনচেলত্তি বলেছেন, রোনাল্ডোর থেকে বেশি গোল করা অনেকটাই অসম্ভব। তাকে ফর্ম ধরে রাখতে হবে এবং এজন্য তাকে আমাদেরকে সহযোগিতা করতে হবে। আমরা এখন বেশ ভালো অবস্থায় আছি। কিন্তু আমাদের একটি বিষয় মনে রাখতে হবে যেকোন গোলের পিছনেই অনেক বেশি ত্যাগ, লড়াই এবং মনোযোগ থাকে। ত্যাগ এবং মনোযোগ ছাড়া গোল করা সম্ভব নয়। একজন সেরা খেলোয়াড় বিষযটি উপলব্ধি করতে পারবে।